Monday, July 13, 2015

কিভাবে ব্লগ/ওয়েব সাইট তৈরি করবেন ও সেখান হতে আয় করবেন! সাথে আছে বোনাস টিপস!!

সবাইকে সালাম ও শুভেচ্ছা। আশা করি ভাল আছেন। আজকের পোস্টে আলোচনা করব কি ধরনের ওয়েব সাইট তৈরি করবেন এবং সেই সাথে যে সব বিষয়াবলীর দিকে সবার নজর দৃষ্টি প্রয়োজন।
বর্তমান হাল সময়ে আমরা অনেক অনেকেই ফ্রি এবং পেইড সাইটে/ব্লগিং করছি। ব্লগিং একটি আধুনিক জনপ্রিয় সোস্যাল মাধ্যম। এর মাধ্যমে নিজেকে বিশ্বের কাছে জানান দিতে পারছি। অপরদিকে ইনকামের পন্থা হিসাবে কাজে লাগাচ্ছি। যাইহোক বর্তমান সময়ে তরুনদের মধ্যে এখন অনেকেই ব্লগিং করার জন্য মনোনিবেশ করছেন। তাছাড়া বাংলাদেশে এমন অনেক ব্লগার/ফ্রিল্যান্সার আছেন যারা ব্লগ থেকে ভাল ইনকাম করছেন। অপরদিকে বলা যায় ফ্রিল্যান্স ইনকাম হতে ব্লগের ইনকাম তুলনামূলক সোজা।



কেননা, ফ্যিল্যান্স করতে আপনাকে অনেক সময় দিতে হবে, কাজ জানতে হবে, পরীক্ষা দিতে হবে, বিড করতে হবে ……..ইত্যাদি …ইত্যাদি কত ঝামেলা। তবে ব্লগিং করার ক্ষেত্রে ততটা ঝামেলা নাই, ঝামেলা থাকলেও ফ্রিল্যান্স হতে কিছুটা শিথিল অবস্থানে। তবে হ্যা ব্লগিং করতে হলে আপনাকে প্রথম দিকে অনেক পরিশ্রম করতে হবে, ভাল ভাল ইউনিক পোস্ট লিখতে হবে, সাইটকে পপুলারিটি করতে হবে। যদি একবার আপনার ব্লগ সাইটকে পপুলার করে ফেলেন, তাহলে আর পিছনে ফিরে তাকাবার সময় নাই! আপনাকে তখন অআর পাই কে!! তবে যাইহোক ইনকাম করতে হলে কিন্তু আপনার ওয়েব/ব্লগ সাইটটির কন্টেন্ট কিন্তু অবশ্যই ইংরাজীতে হতে হবে।

ব্লগ/ওয়েব সাইট তৈরির কিছু নিয়মাবলী:

হ্যা ব্লগ সাইট তৈরির কিছু নিয়ম কানুন ও নিয়মাবলী আছে। এই জন্য তড়িঘড়ি কাজ না করে বুদ্ধিমত্তার সাথে এগোতে হবে। আসলে এই পোস্টটি করছি যারা ব্লগিং শুরু করবেন কিংবা নিজের নামে সাইট তৈরি করতে যাচ্ছেন। অপরদিকে যারা তৈরি করে ফেলেছেন তাদের হলেও কাজে আসতে পারে। তাহলে কিছু টিপস্ জেনে নিই-

১। ফ্রি সাইট/ পেইড সাইট:

প্রথমেই আপনাকে ঠিক করতে হবে। আপনি কি উদ্দেশ্য সাইটটি বানাবেন। এটি কি ফ্রি সাইট তৈরি করবেন নাকি পেইড হিসাবে? হ্যা ফ্রিভাবে অনেক সাইট বানানো যায় যেমন- wordoress.com, weebly.com, blogger.com, hoxx.com ইত্যাদি। তবে নিজেকে একজন ব্লগার হিসাবে নিয়োজিত ও ইনকামের ধান্দা থাকলে তাহলে পেইড ডোমেইন ও হোস্টিং ক্রয় করে কাজ করাটাই ভাল হবে। তবে হ্যা এই ক্ষেত্রে আপনি প্রথমত গুগল ব্লগারে একটি ফ্রি সাইট ওপেন করে সেখানে ডোমেইন যুক্ত করে কিছুদিন কাজ চালাতে পারেন। যখন পপুলারিটি হবে তখন হোস্টিং সুবিধা যোগ করলেই হবে।

২। সাইটের কন্টেন্ট:

 

আপনি যে সাইট তৈরি করবেন। সেখানে কি থাকবে মানে কি টাইপের হবে। তা নির্ধারন করতে হবে। যেমন: Game, Movie, Download, Blog content, Buy & Sell. তবে এই ক্ষেত্রে Blog content, Download সাইটের উদ্দেশ্য নিয়ে ব্লগ তৈরি করলে সহজেই জনপ্রিয় হয়ে ওঠে।

৩। একটি ভাল ও ইউনিক নামের বাহার:

আপনি ফ্রি ও পেইড যে ভাবেই সাইট/ব্লগ চালু করুন না কেন! আপনাকে অবশ্যই একটি ভাল নাম খুজতে হবে। অর্থাত সাইটটি ভাল ও ইউনিক নামের হতে হবে। নামটি অর্থবোধক, সহজ ও ইউনিক হতে হবে। আবোল-তাবোল নাম ভিজিটরদের মনে জগা খিচুড়ী দিবে। যেমন- আপনি প্রযুক্তি বিষয়ক একটি ব্লগ সাইট দাড় করাবেন সেখানে নাম দিলেন Hotcow কিংবা ডাউনলোডের সাইটের নাম দিলেন mofiz mama। এই সব নাম কিন্তু ভাল ফল করবে না। কেননা, ভিজিটরদের তো মনে রাখতে হবে। এবং হ্যা ভাল নাম কিন্তু আপনার সাইটের ভাল SEO তৈরির সুযোগ দিবে। তাই যে উদ্দেশ্য নিয়ে সাইট তৈরি করবেন, সেই নামে দেওয়ার চেষ্টা করবেন, বিশেষত ইংরাজী সাইট তৈরির ক্ষেত্রে।

৪। একটি সাইট তৈরির ক্ষেত্রে নামের সাথে অন্য সকল রিলেটেড সাইটের নাম একই হতে হবে:

হ্যা কথাটা একদম ১০০% সত্যি! সাইট তৈরি করার সময় মূল নাম তথা ডোমেইনের নামের সাথে অন্য থার্ড পার্টি সাইটের নামগুলো মিল রাখতে হবে। প্রায় ৭০% ভিজিটরের এই ধারনা মাথাতে রাখেন না, ভূল করে থাকেন। উদাহরন হিসাবে বলছি- যেমন: আপনার ডোমেইনের নাম হল: pchelplab.com। তাহলে অন্য সকল সাইটের নামও একই হতে হবে যেমন-
 

২। টুইটার : http://www.twitter.com/pchelplab
৩। গুগল ব্লগস্পট: http://www.pchelplab.blogspot.com
৪। ওয়ার্ডপ্রেস: http://www.pchelplab.wordpress.com
৫। উইবলি: http://www.pchelplab.weebly.com
৬। ফেসবুক: http://www.facebook.com/pchelplab
৭। লিংকডেন: http://www.linkdin.com/pchelplab
৮। ইমেইল এড্রেস: pchelplab@gmail.com, pchelplab@yahoo.com, pchelplab.com@gmail.com
এবার দেখুনতো এই সকল কাজগুলো যদি একই নামের হয়, তাহলে কত সুন্দর দেখাবে। অর্থাত আপনি ১০০ তে ১০০!! আবার নামটিও ভাল pchelplab মানে- কম্পিউটার বিদ্যা গবেষনাগার। অনেকে এই বিষয় গুলো জানেন না। তারা মনে করেন- প্রথমত একটি নাম/ডোমেইন নিলেই সব মাফ! অন্য কিছুর প্রয়োজন নাই। আসলে এমনটির কারনে ভূলের খেসারত দিতে হয়। তাই অনেকের ডোমেইনের নাম এক রকম, আবার টুইটার, ফেসবুকের লিংক অন্য নামের।

৫। নাম নেওয়ার পূর্বে চেকিং করুন:


উপরের ৪ নং পয়েন্ট অনুযায়ী কথা বলছি। তাই কি নামের ডোমেইন/সাইটের নাম দিবেন তা ঠিক করে নিন। এবং বাকি সব যে নামের একাউন্ট ওপেন করবেন সেই সব সাইটে গিয়ে চেকিং করে নিন কোন নামটি ফাকা আছে কিংবা ব্লক হয়ে গিয়েছে। আমার  

পরামর্শ হল: প্রথমত গুগল ব্লগ স্পট সাইট ও ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে একই নামের একটি ফ্রি ব্লগ ওপেন করবেন। অতপর বাকি সাইটের নাম গুলো রেজি: করে নিবেন তাহলে কেউ পরবর্তীতে রেজি: করে নিতে পারবে না। অতপর পরিশেষে ফ্রি ব্লগের নামের সাথে একটি পেইড ডোমেইন ক্রয় করলেই হবে।
(জ্ঞাতব্য বিষয়: ভাল নামের যদি একটি ফ্রি সাইট ওপেন করেন। তাহলে পরবর্তীতে ঐ নামের ডোমেইন নিতে পারবেন। কারন, বর্তমানে যে নামের ডোমেইন গ্রহন করুন না কেন, সাইট রেস্পন্স হিসাবে অবশ্যই ওয়ার্ডপ্রেস ও ব্লগ স্পট সাইটে একই নামের সাব ডোমেইন হতে হবে। যদি দেখেন ডোমেইন হিসাবে কোন নাম খালি আছে বাট ফ্রি সাব ডোমেইন হিসাবে ফ্রি ওয়েব সাইট ওপেন করা হয়েছে। তাহলে ঐ নাম বাদ দিতেই হবে।
উদাহরন: মনে করুন ডোমেইন হিসাবে durerbondhu.com নিবেন কিন্তু durerbondhu ডোমেইন নামটি ফাকা অআছে। বাট ওয়ার্ডপ্রেস/ব্লগ স্পট সাইটে উক্ত নামটি ব্যবহার করা হয়েছে তাহলে উক্ত নামটি বাদ দেওয়াই শ্রেয়।

৬। অন্য নামের সাথে সঙ্গতি:

 

আপনি যে নাম গ্রহন করতে যাচ্ছেন সেই নামের সাথে পূর্বের রেজি:কৃত কোন সাইটের নাম মিলে যাচ্ছ কিনা সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। যেমন: techtunes.com নামে সাইট রেজি: করা আছে। কিন্তু আপনি মনে করলেন techtunes24.com নামে ডোমেইন নিবেন। হ্যা নাম ফাকা থাকলে নেওয়া যাবে। কিন্তু ভাল ফলাফল পাবেন না। যেমন: এ্সইও করতে সমস্যা হতে পারে, ভিজিটরেরা কনফিউসে থাকতে পারেন। তাছাড়া যখন গুগলে সার্চ দিবেন সেই ক্ষেত্রে পূরাতন রেজি: কৃত ডোমেইনের লিংক গুলো সবার আগে শো করে। সুতরাং ভিজিটর ভূলবশত আপনার সাইট মনে করে অন্য সাইটে প্রবেশ করতে পারে। মূলত যে গুলো পূরাতন ডোমেইন সেইগুলোর নামের আশে পাশে মিল রেখে রেজি: না করাটাই শ্রেয়! এবং হ্যা ডোমেইন রেজি: করতে হলে অবশ্যই .com এর প্রাধান্য দিবেন। কেউ পাগল নই যিনি .com ব্যতিত অন্য নামে ডোমেইন নেন যেমন- net, org, in ইত্যাদি। যে সব প্রতিষ্ঠান/ওয়েব সাইট ওনার আছেন তারা অধিক পরিচিতি/পপুলারিটির কারনে একই নামে ৩ টি TLD  তে রেজি: করেছেন।

৭। ভাল ডোমেইন প্রভাইডার হতে ডোমেইন নিন:


পরিশেষে মনে করি অআপনি পপুলারিটি পেয়েছেন। এখন একটি ডোমেইন নিবেন। হ্যা ডোমেইনটি ভাল প্রতিষ্ঠান হতে নিবেন। যাতে পরবর্তীতে অন্য কোথাও ট্রান্সপার, রিনিউ কিংবা নিজে মডিফাইড করতে পারেন। যদি প্রভাইডার ট্রাষ্টেড না হয় তাহলে হয়ত অআপনার সাধের ডোমেইনটি অন্য কোথাও বিক্রি কিংবা প্রভাইডার নিজের নামে করে নিতে পারেন। So, be carefully! অবশ্য বাংলাদেশে বেশ কয়েকটি ডোমেইন প্রভাইডার রয়েছে যারা বিশ্বস্ত ও সুনামের সাথে ব্যবসা করছে। আপনি সেখান হতে রিভিউ নিতে পারেন।

এই সম্পর্কে টিটিতে একটি টিউন করেছিলাম এখানে

৮। ভাল মানের হোস্টিং

হ্যা ডোমেইনের পাশাপাশি ভাল মানের হোস্টিং নিতে হবে। মনে করি আপনার গুগল ব্লগ স্পট সাইট আছে। সেখানে ভিজিটর প্রায় পার ডে ১,৫০০০ এর মত। তাহলে অবশ্যই আপনাকে ভাল মানের ক্লাউড/শেয়ার্ড হোস্টিং নিতে হবে। দেশী/বিদেশী যে কোন ভাল হোস্টিং প্রভাইডার হতে হোস্ট নিতে পারেন।

হোস্টিং সম্পর্কে একটি পোস্ট করেছিলাম এখানে

৯। SEO করুন!


আপনার সাইট তৈরি করার পর SEO এর দিকে বেশী মনোযোগ দিন। ধীরে ধীরে সাইটটি SEO করুন! এক সময় খুব ভাল ফলাফল পাবেন। মূলত SEO করার কারনে ভাল ভিজিটর ও অ্যালেক্সা রেটিং ভাল পাওয়া যায়। SEO করতে গেলে অআপনাকে Google, Bing, Yahoo সার্চ মেশিনের কথা মাথা রেখে এগোতে হবে। তাহলে উভয় অপটিমাইজেশন হতে ভাল ভিজিটর পাওয়া ফলপ্রসূ হবে।

১০। কপি-কন্টেন্ট পোস্ট পরিহার করুন!


আপনার সাইট নিয়ে যদি অনেক দূর এগোতে চান, পপুলারিটি পেতে চান এবং ইনকামের হিসাব থাকে তাহলে আপনার ব্লগ সাইটে নতুন কিছু করার চিন্তা করুন। এই জন্য কপি-কন্টেন্ট পোস্ট অবশ্যই পরিহার করুন! তবে হ্যা অন্য সাইট হতে যদি কোন পোস্ট ব্যবহার করতে চান তাহলে তা মডিফাইড করে নিতে পারেন, হুবহু নকল করা যাবে না। এবং হ্যা নিজের সাইটটি অন্য কোন জনপ্রিয় সাইটের সাথে Compare করতে থাকুন।
তাহলে বন্ধুরা আজ এই পর্যন্তই। পোস্টটি লিখতে প্রায় ৪ ঘন্টার বেশী সময় ব্যয় করতে হয়েছে। তবুও ভূলের উর্দ্ধে নই, কাজেই ত্রুটি-বিচ্যুতি থাকাটাই স্বাভাবিক। যাইহোক টিউন সম্পর্কে কোন অভিমত/পরামর্শ খাকলে কমেন্ট করতে পারেন। এবং হ্যা আমি আছি আমার ক্ষুদ্র ব্লগ সাইটে এখানে
Previous Post
Next Post

0 comments: Post Yours! Read Comment Policy ▼
লক্ষ্য করুনঃ
পোষ্টের সাথে সম্পৃক্ত নয় এমন কোন কমেন্ট করা যাবে না। কোন কারণ ব্যতীত আপনার ব্লগের লিংক শেয়ার করতে যাবেন না। সবসময় গঠনমূলক মন্তব্য প্রদানের চেষ্টা করবেন। আমরা সবার মতামত সমানভাবে মূল্যায়ন করি এবং যথাসময়ে প্রতি উত্তর দেয়ার চেষ্টা করি।

Post a Comment

 
Copyright © বিডি.পয়সা ক্লিক,নিবন্ধিত ও সংরক্ষিত. মডিফাইঃ পিসি টীম, সার্ভার হোস্টেডঃ গুগল সার্ভিস